নাসিমকে নিয়ে ‘কটূক্তি’ করা সেই রাবি শিক্ষক সাময়িক বরখাস্ত

  • 57
    Shares

প্রয়াত সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমকে নিয়ে ফেসবুকে কটূক্তির অভিযোগে গ্রেফতার রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষক কাজী জাহিদুর রহমানকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

শনিবার (২৭ জুন) সকালে উপাচার্যের বাসভবনে অনুষ্ঠিত বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও ছাত্র উপদেষ্টা (অতিরিক্ত দায়িত্বে) অধ্যাপক মো. লুৎফর হমান এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, ‘সিন্ডিকেট সভায় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাদেশ অনুযায়ী তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। তার গ্রেফতারের দিন ১৮ জুন থেকে তিনি সাময়িক বরখাস্ত বলে বিবেচিত হবেন।’

কাজী জাহিদুর রহমান বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটর সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক। শহীদ সোহরাওয়ার্দী হলের আবাসিক শিক্ষক। বিশ্ববিদ্যালয়ে আওয়ামীপন্থী শিক্ষক হিসেবেও পরিচিত তিনি। বর্তমানে তিনি ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা মামলায় গ্রেফতার হয়ে জেলহাজতে রয়েছেন।

গত ১৭ জুন রাজশাহী নগরীর সাগরপাড়ার বাসিন্দা অ্যাডভোকেট তাপস সাহা বাদী হয়ে কাজী জাহিদুর রহমানের বিরুদ্ধে মতিহার থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৫, ২৯ ও ৩১ ধারায় মামলা দায়ের করেন।

মামলায় মোহাম্মদ নাসিমের বিরুদ্ধে মানহানিকর তথ্য প্রচারের অভিযোগ করা হয়। মামলার অভিযোগের প্রাথমিক সত্যতা পাওয়ায় ১৭ জুন দিবাগত রাতেই তাকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের আবাসিক কোয়ার্টার থেকে গ্রেফতার করা হয়।

জাহিদুর রহমান রাবির শিক্ষক হলেও নড়াইল জেলা আওয়ামী লীগের সদ্য বিলুপ্ত কমিটির তথ্য ও গবেষণা সম্পাদকের পদে ছিলেন। তবে নাসিমকে কটূক্তির পর গত ১৬ জুন জাহিদুর রহমানকে নড়াইল জেলা আওয়ামী লীগের প্রাথমিক সদস্যপদও বাতিল করা হয়।

প্রসঙ্গত, গত ১ জুন রাতে মোহাম্মদ নাসিম অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলে ‘তাঁর অসুস্থতা নিয়ে’ ব্যঙ্গ করে নিজের ফেসবুকে স্টাটাস দেন শিক্ষক কাজী জাহিদুর রহমান। সেই স্টাটাসে সরাসরি মোহাম্মদ নাসিমের নাম উল্লেখ না থাকলেও স্পষ্ট তাঁকে ইঙ্গিত করে ‘বিষোদাগার’ করার অভিযোগ ওঠে কাজী জাহিদুর রহমানের বিরুদ্ধে।

বাংলা প্রবাহ /এন এ

,
শর্টলিংকঃ